মঙ্গলবার ২৩ জুলাই ২০২৪, ৭ শ্রাবণ ১৪৩১

ইসলাম ডেস্ক :

প্রকাশিত: ১৬:৫৫, ৭ জুলাই ২০২৪

নববর্ষে নতুন গিলাফে সজ্জিত কাবাঘর

নববর্ষে নতুন গিলাফে সজ্জিত কাবাঘর
সংগৃহীত

মুসলিমদের আরবি নতুন বর্ষ উপলক্ষে নতুন গিলাফে সজ্জিত করা হয়েছে পবিত্র কাবাঘর। শনিবার (৬ জুলাই) রাতে মক্কায় পবিত্র মসজিদুল হারাম প্রাঙ্গণে আনুষ্ঠানিকভাবে গিলাফ পরিবর্তন করা হয়।

সৌদি আরবে গতকাল সন্ধ্যার পর থেকে শুরু হয় ১ মহররম, নতুন চন্দ্রবর্ষ ১৪৪৬ হিজরি। এ উপলক্ষে কাবার গিলাফ পরিবর্তন করা হবে সেটা আগেই হারামাইনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল। রাতভর গিলাফ পরিবর্তনের আনুষ্ঠানিকতা চলে।

সৌদি বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, মক্কার বাদশাহ আবদুল আজিজ কমপ্লেক্সে পবিত্র কাবাঘরের কালো গিলাফ প্রস্তুত করা হয়। সেখানকার বিশেষজ্ঞ প্রকৌশলী ও প্রযুক্তিবিদের তত্ত্বাবধানে ১৫৯ দক্ষ কারিগর নতুন গিলাফ পরিবর্তনের কার্যক্রম সম্পন্ন করেন।

প্রথমে কাবাঘর থেকে পুরনো গিলাফ সরিয়ে নেওয়া হয়। এরপর নতুন গিলাফ কারখানা থেকে মসজিদ প্রাঙ্গণে এনে স্থাপন করা হয়।

মূলত সোনার সুতা দিয়ে তৈরি গিলাফ বা কিসওয়ার ৫৩টি টুকরা রয়েছে। এরমধ্যে বেল্টের ১৬টি, বেল্টের নিচে সাতটি, কোণার টুকরো চারটি, ১৭টি লণ্ঠন, দরজার পর্দা পাঁচটি, রুকনে ইয়ামানির একটি ও হাজরে আসাওয়াদ বা কালো পাথরের একটি টুকরা রয়েছে।

পুরো গিলাফের পুরো কার্যক্রম সম্পন্ন করতে ৬০ থেকে ১২০ দিন সময় লাগে। ২১ ক্যারেটের ১২০ কেজি স্বর্ণ ও ১০০ কেজি রুপার সুতা দিয়ে সেই কাপড়ে লেখা হয় পবিত্র কোরআনের আয়াত ও আল্লাহর গুণবাচক নাম। সব মিলিয়ে ৮৫০ কেজি ওজনের এই গিলাফ তৈরিতে ব্যয় হয় ২৫ মিলিয়ন সৌদি রিয়াল বা সাড়ে ছয় মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

সম্পর্কিত বিষয়:

জনপ্রিয়